বিসিএস আই আর, চট্টগ্রামে উদ্বোধন হল তিন দিন ব্যাপী “বিজ্ঞান ও শিল্প-প্রযুক্তি মেলা ২০১৭”

ক্ষুদে বিজ্ঞানীদের বিজ্ঞান চর্চায় আগ্রহী করার লক্ষ্যে গত ২২শে জানুয়ারি শুভ উদ্ভাবন হল বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণা পরিষদ (বিসিএসআইআর), চট্টগ্রাম কতৃক আয়োজিত “বিজ্ঞান ও শিল্প-প্রযুক্তি মেলা ২০১৭”।

মেলার উদ্ভাবনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণা পরিষদ, ঢাকা’র মাননীয় সদস্য (উন্নয়ন) সৈয়্যদা আনয়ারা খাতুন। সভাপতিত্ব করেন বিসিএসআইআর গবেষণাগার চট্টগ্রামের মাননীয় পরিচালক মাহমুদা খাতুন এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন এশিয়ান ইউনিভার্সিটি ফর উইমেন, চট্টগ্রামের উপচার্য (ভারপ্রাপ্ত) মিস রোজী বেটসন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় সৈয়্যদা আনোয়ারা খাতুন বলেন, “বিজ্ঞান গবেষণা একটি উন্নত জাতি গঠনে গুরুত্বপুর্ণ ভূমিকা রাখে। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে সরকার বিজ্ঞান গবেষণায় চাহিদার সমান বিনিয়োগ করছেন। সময় এখন বিজ্ঞানীদের এগিয়ে আসার।”

সভাপতির বক্তৃতায় চট্টগ্রাম বিসিএসআইআর এর পরিচালক মাহমুদা খাতুন বলেন, “দশম বারের মত আয়োজিত এই বিজ্ঞান মেলার লক্ষ্য হল শিক্ষার্থীদের বিজ্ঞানে আগ্রহী করে তোলা।”

মিস রোজী বেটসন বিশেষ অতিথির বক্তৃতায় শিক্ষার্থীদের বিজ্ঞান চর্চার গুরুত্ব তুলে ধরেন। সারাবিশ্বে বিজ্ঞান খাতে বিশেষভাবে মনযোগী হওয়ার কারণে ইউরোপ আমেরিকার দেশগুলো উন্নতি সাধন করেছেন বলে তিনি মনে করেন। শিক্ষার্থীদের শিক্ষা বিষয়ক সব ধরণের সহযোগীতার জন্য তিনি প্রস্তুত বলে জানান।

অনুষ্ঠানে আরো বক্তৃতা রাখেন শোয়েবুল্লাহ, শ্রীবাস চন্দ্র ভট্টচার্য, ডঃ দীপঙ্কর চক্রবর্তী, নিমাই চন্দ্র নন্দী, হাবিবুর রহমান ভুইঁয়া প্রমুখ। অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করেন সায়েন্টিফিক অফিসার আবু জাহান মোহাম্মদ মোরশেদ।

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পরমানু শক্তি কমিশনের পরিচালক সেলিম খান।


মেলায় চট্টগ্রামের ১৯টি স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের ১২২ টি প্রজেক্ট ওয়ার্ক নির্বাচিত হয়। প্রজেক্ট ওয়ার্কগুলো প্রদর্শনের জন্য শিক্ষার্থীরা নির্দিষ্ট স্টলে অবস্থান করছে। অনুষ্ঠান শেষে অতিথিবৃন্দ স্টলগুলো পরিদর্শন করেন। আগামী তিন দিন অনুষ্ঠান চলবে।